জগন্নাথপুরে বরের জাতীয় পরিচয়পত্র নেই বিয়ে ভঙ্গ: ফুফাত্ব ভাইয়ের সঙ্গে বিয়ে

প্রকাশিত: ৮:২২ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৫, ২০১৮

Sharing is caring!

জগন্নাথপুর প্রতিনিধি:: বরের জাতীয় পরিচয়পত্র(ন্যাশনাল আইডি কার্ড) না থাকায় সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর উপজেলার পাইলগাঁও ইউনিয়নের উলুকান্দি গ্রামে বিয়ে ভেঙ্গে দিলেন কনের বাবা কৃষক বাছিত মিয়া। পরে একই গ্রামের হোসাইন আহমদ নামের এক যুবকের সাথে তিনি মেয়ের বিয়ে দেন।

জানা যায়, গত রোববার জগন্নাথপুর উপজেলার আশারকান্দি ইউনিয়নের জামালপুর গ্রামের মৃত হিরন মিয়ার ছেলে রুবেল মিয়ার সাথে একই উপজেলার পাইলগাঁও ইউনিয়নের উলুকান্দি গ্রামের কৃষক বাছিত মিয়ার মেয়ের বিয়ে ঠিক হয়। যথাসময়ে বেলা দেড়টার দিকে বরযাত্রী নিয়ে হাজির হয় বরপক্ষ। উপস্থিত হন কাজী মাওলানা হাফিজুর রহমান। বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা শুরু করতে বরের জাতীয় পরিচয়পত্র চাওয়া হয়। এসময় ভুলে আইডি কার্ড আনা হয়নি বলে বরপক্ষের লোকজন জানান। কিন্তু আইডি কার্ড ছাড়া বিয়ের কাবিন হবে না বলে ঘোষনা দেন কাজী মাওলানা হাফিজুর রহমান। দীর্ঘক্ষন দু’পক্ষের মধ্যে কথাকাটাকাটি হলে এক পর্যায়ে কনের বাবা বিয়ে ভেঙ্গে দেন।

কৃষক বাছিত মিয়া জানান, যার কোন জাতীয় পরিচয়পত্র নেই তার সঙ্গে কীভাবে নিজের মেয়ের বিয়ে দেব। তাই এ বিয়ে ভেঙ্গে দিয়ে আমার মেয়ের ফুফাত্ব ভাইয়ের সঙ্গে ওই দিন বিবাহ দিয়েছি।

স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মুকলেচ্ছুর রহমান খবরের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, আমি শুনেছি ঘটনাটি। এতে করে সচেতনতা সৃষ্টি হবে। জাতীয় পরিচয়পত্র ছাড়া বর কিংবা কনের বিবাহ দেওয়া ঠিক নয়।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

সর্বশেষ খবর

………………………..

shares