সুনামগঞ্জ-১ আসনে তৃনমূল নেতাকর্মীরা এমপি রতনকেই আবারও চান

প্রকাশিত: ১১:০১ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ২২, ২০১৮

সুনামগঞ্জ-১ আসনে তৃনমূল নেতাকর্মীরা এমপি রতনকেই আবারও চান

Sharing is caring!

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি :: হাওর বেষ্টিত সুনামগঞ্জের ১আসনে আগামী সংসদ নির্বাচনে তোরজোর শুরু হয়েছে। বসে নেই দুই দলের সম্ভাব্য প্রার্থীরা। যে যার মত করেই মিটিং,সমাবেশ ও গনসংযোগ করছেন ভোটারদের ধারে ধারে। সুনামগঞ্জ ১আসনের সুযোগ্য এমপি রতন সবাইকে পিছনে ফেলে মাঠে ব্যাপক গনসংযোগ আর বিভিন্ন মিটিং করে সারা দেশে ও এলাকায় প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা,স্বাস্থ্য,যোগাযোগসহ সর্ব ক্ষেত্রে উন্নয়নের বার্তা পৌছাতেই প্রায় প্রতিদিনেই মাঠ কাপিয়ে রাখছেন সুনামগঞ্জ ১আসনে এমপি ইঞ্জিনিয়ার মোয়াজ্জেম হোসেন রতন।
সংসদীয় আসনের স্থানীয় এলাকাবাসী ও দলীয় সূত্রে জানাযায়,নির্বাচিত হবার পর থেকে গত ১০টি বছরের এলাকায় ব্যাপক উন্নয়নের করেন। সেই সাথে সুনামগঞ্জ ১আসনে তৃনমুল নেতাকর্মীদের যোগ্য মূল্যায়ন করায় আবারও এমপি হিসাবেই রতন সাহেব কেই আবারও আ,লীগের দলীয় মনোনীত এমপি প্রার্থী হিসাবে দেখতে চাইছে সুনামগঞ্জ ১আসনের (জামালগঞ্জ,তাহিরপুর,ধর্মপাশা) দলীয় সকল নেতাকর্মীরা। তিনি আবারও নির্বাচিত হলে এলাকায় আরো ব্যাপক উন্নয়ন হবে এবং দলের মাঝে সকল বেধাবেদ থাকবে না। সকল বিভাজন ঐক্যে পরিনত হবে বলে ধারনা করছেন ভোটরগন। তবে কিছু কিছু কর্মী ও মনোনয়ন প্রত্যার্শীরা পরপর নির্বাচিত এমপি ইঞ্জিনিয়ার মোয়াজ্জেম হোসেন রতন বিরোদ্ধে যে বিদ্রæপ মন্তব্য করছেন তা শুধু তাকে ঘায়েল করার জন্য। এই বিদ্রুব শুধু এমপি রতন সাহেবের না এটা দলের জন্য লজ্জাজনক। কারন তিনি আ,লীগের মনোনীত বিজয়ী প্রার্থী। আর বর্তমান এমপি নিজের জন্য নয় সংসদীয় এলাকা,দেশ ও দলের স্বার্থেই নিজেকে বিলিয়ে দিয়েছেন সব সময়। যারা তার বিরোধীতা করছেন তাকে আর চাচ্ছেন বলে বলে বেড়াচ্ছেন তাদের অনৈতিক ও দলীয় বিরোধী কাজে সহযোগীতা না করার কারনেই বর্তমান এমপির বিরোদ্ধে পরিষ্কার পানিকে ঘোলা করছে স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধের বিরোধীতাকারীরা বলছেন স্থানীয় নেতাকর্মীরা ও দলের সচেতন তৃনমূল কর্মীরা। তাহিরপুর উপজেলা আ,লীগ নেতা ও বাদাঘাট ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান নিজাম উদ্দিন,উত্তর বড়দল ইউনিয়ন যুবলীগ সভাপতি মাসুক মিয়া,বাদাঘাট ইউনিয়ন যুবলীগ সভাপতি সেলিম হায়দার বলেন,আমার জননেত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখার জন্য পর পর দুই বার নির্বাচিত বর্তমান এমপি ইঞ্জিনিয়ার মোয়াজ্জেম হোসেন রতন শিক্ষা,স্বাস্থ্য,যোগাযোগসহ সর্ব ক্ষেত্রে ব্যাপক উন্নয়ন করায় আমরা সবাই চাই জননেত্রী উনাকেই আবার দলীয় মনোনয়ন দেন। তিনি আবারও দলের একক প্রার্থী হলে বিজয় কেউ ঠেকোতে পারবে না। আমরা সবাই ঐক্যবদ্ধ ভাবে সকল বাধা ঠেলে বিজয় ছিনিয়ে আনতে পারব। এবং এলাকায় আবারও উন্নয়নের নেত্রী শেখ হাসিনার মুখ উজ্জল করবেন ইঞ্জিনিয়ার মোয়াজ্জেম হোসেন রতন। দলের মধ্যে কিছু নেতা-কর্মী,স্বাধীনতা বিরোধী ও মুক্তিযোদ্ধের বিরোধীতাকারীরাই নিজের স্বার্থ হাসিল করতে না পারায় দলের দূনার্ম রটাচ্ছে আর এমপি সাহেবের বিরোধীতা করছে তা সবাই জানে।
সুনামগঞ্জ ১আসনে এমপি ইঞ্জিনিয়ার মোয়াজ্জেম হোসেন রতন বলেন,আমি আমরা দলের নেতাকর্মীসহ সবাই সম্পূর্ন ভাবে আগামী একাদশ জাতীয় নির্বাচনের জন্য শক্তিশালী অবস্থানে রয়েছি। আছি সেই ভাবে কাজ করছি। নিবার্চিত হবার পর থেকে এলাকার জনগনের প্রত্যাশা পূরনে সফল হয়েছি। আমার নির্বাচনী এলাকায় মসজিদ,মাদ্রাসা,মন্দিরসহ শিক্ষা,যোগাযোগ ক্ষেত্রে ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছে তার প্রমান এলাকার জনগন। দলের ৩৭টি দলীয় অফিস তৈরী করেছি। দলে বিভিক্তি নেই প্রতিযোগীতা আছে। যারা বিরোধিতা করছে তারা কারো না কারো এজিন্ডা বাস্থবায়ন করতে চাইছে। মুক্তিযোদ্ধের বিরোধিতাকারীরা ও তাদের স্বার্থে আঘাত লাগার কারনেই আমার বিরোদ্ধে কথা বলছে। যারা প্রার্থী হতে চাইছে তারা কয়েকটি দল পরিবর্তন করে এখন এখানে আসতে চাইছে। তারা সব সময় ও গত নির্বাচনে দলের বিরোদ্ধে কাজ করেছে। আমি আমার দল এলাকায় জনসাধরনের কাছে কাজের মূল্যায়ন পাব এবং এলাকার তৃনমুল নেতাকর্মীদের দাবী দলীয় প্রধান জননেত্রী শেখ হাসিনা আমাকে মূল্যায়ন করে আবারও এলাকায় উন্নয়নের জন্য আমাকে কাজ করার সুযোগ দেন।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

সর্বশেষ খবর

………………………..

shares