শিল্পীরা গাইলেন,নাচলেন ও সম্মাননা নিলেন

প্রকাশিত: ১২:০৯ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৩১, ২০১৮

Sharing is caring!

ক্রাইম সিলেট ডেস্ক : রাজধানীর অদূরে গাজীপুরে অবস্থিত মেঘবাড়ী রিসোর্টের এলাকাটা মঙ্গলবার সকাল থেকেই ছিল ভিন্ন আবহে। কারণ চারপাশে লাল কার্পেটে মোড়ানো স্বচ্ছ ও গোছানো পরিবেশের পাশাপাশি প্রবীণ ও নতুন তারকাদের সমন্বয়ে জমকালো আয়োজনের মধ্য দিয়ে শেষ হয় এবারের চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির বনভোজন। তারকাদের এই বার্ষিক বনভোজনের মিলনমেলায় একমঞ্চে দাঁড়িয়ে কথা বলেন আলমগীর, ফারুক, সুচন্দা, ববিতা, অঞ্জনা, চম্পা, ডিপজল, শাবনাজ, নাঈম,শাবনূর, মিশা সওদাগর, সোহেল রানা। আরো ছিলেন রিয়াজ, ফেরদৌস, পপি, নিরব, ইমন, সাইমন, জায়েদ খান, নাসরিনসহ অনেকে। শুধু মঞ্চ নয়, মঞ্চের সামনে দর্শক সারিতে হাজির হন চিত্রনায়িকা অরুণা বিশ্বাস, শিল্পী, পলি, শাকিবা, আন্না, নিঝুম রুবিনা, শিরিন শিলা, রোমানা নীড়, বিপাশা কবির, অধরা খান, অভিনেতা আলীরাজ, রুবেল, বাপ্পী, জয়, নাদিম, শিপন, জেমিসহ আরো অনেকেই। অনুষ্ঠানে এক ফাঁকে এসে ঘুরে যান পূর্র্ণিমা ও অপু বিশ্বাস।

এত তারকা একসঙ্গে দেখে রীতিমত বিষ্ময় প্রকাশ করেছেন সোহেল রানা। দুপুরের খাবারের পর বিকেলে অনুষ্ঠানের মঞ্চে দাঁড়িয়ে তিনি বলেন, আজ আমার খুব ভালোলাগছে। আর এবারের আয়োজনে ড্রোন দেখলাম এই প্রথম। এমন পরিবেশে এসে সত্যিই মনটা ভরে গেল। সাংস্কৃতির আয়োজনের আগে মঞ্চে উপস্থিত হয়ে নিজের অনুভূতি প্রকাশ করেন চলচ্চিত্রের এই সিনিয়র অভিনেতা। এ সময় মঞ্চে সমিতির পক্ষ থেকে বেশ কয়েকজন জ্যেষ্ঠ শিল্পীকে সম্মাননা প্রদান করেন শিল্পী সমিতির সভাপতি মিশা সওদাগর ও সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খান। একই সময় চিত্রনায়ক আলমগীরকে গান গাওয়ার অনুরোধ করেন আরেক চিত্রনায়ক জায়েদ খান। তখন চিত্রনায়ক আলমগীর চিত্রনায়িকা ববিতাকে মঞ্চে তার সঙ্গে থাকার অনুরোধ করেন। এ সময় তিনি গান ধরেন ‘টেলিফোনে কিছু কথা হলো’ এবং ‘আছেন আমার মুক্তার’ শিরোনামের দুটি জনপ্রিয় গান। প্রথম গানটিতে ববিতা এবং পরের গানে মিশা সওদাগর, জায়েদ খানসহ অনেকে গানের সঙ্গে তাল মিলিয়ে নাচতে থাকেন। শুধু তাই না এর আগে রিয়াজ, ফেরদৌস উপস্থাপনার পাশাপাশি মঞ্চে ডাকেন শাবনূরকে। তার সঙ্গে পারফর্ম করেন তারা। আরও জনপ্রিয় কিছু গানে পারফর্ম করেন শাবনাজ ও নাঈম। এ সময় গান গেয়ে শোনান সংগীতশিল্পী প্রতীক হাসান। আরও গান পরিবেশন করেন রবি চৌধুরী, মনির খান, আসিফ আকবর, মমসহ অনেকে। এরমধ্যে জনপ্রিয় গায়ক আসিফ আকবর তার তুমুল জনপ্রিয় গান ‘ও প্রিয়া তুমি কোথায়’ গানটি করার সময় সাথে কণ্ঠ দিতে দেখা গেছে রিয়াজ-শাবনূরকে। আসিফ যখন মঞ্চে গানটি পরিবেশন করছিলেন তখন রিয়াজ-শাবনূর নিজেরাও আসিফের সাথে কণ্ঠ মেলান। তারা ছাড়াও আরো ছিলেন ফেরদৌস, সাইমন, ইমন, মিশা সওদাগর ও জায়েদ খান। গান পরিবেশন শেষে শাবনূর বলেন, এভাবে রিয়াজ, আসিফ ভাইয়ের সাথে এই গানটি মঞ্চে দাঁড়িয়ে আবারো গাইতে পারব ভাবতেও পারিনি। রিয়াজ নিজেও উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেন। গান পরিবেশনার পাশাপাশি গায়কদেরও সম্মাননা প্রদান করে চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতি। চিত্রানায়ক ফারুক বলেন, এবারের বনভোজনের আয়োজন অন্যরকম হয়েছে। আর এটা সম্ভব হয়েছে জায়েদ খানের জন্য। শিল্পীরা কোথাও গেলে সম্মান চায়। এবারে বনভোজনে এসে আমরা সিনিয়র শিল্পীরা অনেক সম্মান পেয়েছি।শিল্পী সমিতির কমিটির সদস্যরা ছাড়াও সাংবাদিক, প্রযোজক, পরিচালক, সঙ্গীতশিল্পী, কাহিনীকার, গীতিকারসহ চলচ্চিত্র সংশ্লিষ্ট অনেকে শিল্পী সমিতির বনভোজনে অংশ নেন। বনভোজনে অংশ নেয়া অনেক গায়ক-গায়িকা, অভিনেতা-অভিনেত্রী, পরিচালক এক কথায় বলেছেন যে, এবার বনভোজন অনেক ভালো হয়েছে। আয়োজনটা বেশ বড় পরিসরে ছিল। ঝামেলাও হয়নি। সবার সহযোগিতা ও পৃষ্ঠপোষকতায় সফলভাবে বনভোজন আয়োজন সম্পন্ন করতে পেরেছেন বলে বেশ আনন্দ প্রকাশ করেন মিশা সওদাগর ও জায়েদ খান। প্রায় ২ হাজার মানুষের অংশগ্রহণে চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির বার্ষিক এই আয়োজন ছিলো বৃহৎ পরিসরে। বাদর নাচ, পুতুল নাচ, জমকালো আতশবাজি, ফানুস উড়ানো, র‌্যাফেল ড্রসহ আয়োজনে ছিলো বেশ কিছু আকর্ষণীয় ও ব্যতিক্রমী আয়োজন। সন্ধ্যায় চিত্রনায়ক রুবেলের গান, আজিজ রেজা ও তার দলের ড্যান্সসহ সানজু জন-বিপাশা কবির, আসিফ নুর-অধরা খান, জয় চৌধুরী- রোমানা নীড়, শিপন মিত্র-দিপালী, নাদিম-শিরিন শিলা, আমান রেজা-তানিন সুবহা, পুস্পিতা পপিসহ  এ প্রজন্মের আরও বেশ কয়েকজনের পরিবেশনায় ছিল মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

সর্বশেষ খবর

………………………..

shares