প্রচ্ছদ

জুড়িতে নারী ও শিশুদের উপর হামলা : ১২ দিনেও হয়নি মামলা

০৩ মার্চ ২০১৯, ০০:১০

crimesylhet.com

Sharing is caring!

ক্রাইম সিলেট ডেস্ক : মৌলভীবাজারের জুড়িতে চুরির অপবাদে একই পরিবারের নারী-শিশুসহ ৪ জনকে মারপিট করে আহত করেছেন প্রভাবশালী প্রতিপক্ষ। এ ঘটনায় থানায় অভিযোগ দিলেও আইনগত ব্যবস্থা নেয়নি পুলিশ। গত ২০ ফেব্রæয়ারি সকালে জুড়ি থানার জাঙ্গীরাই গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

অভিযোগে প্রকাশ, জাঙ্গীরাই গ্রামের খোকন মিয়াদের সাথে একই গ্রামের হতদরিদ্্র কাওসার আহমদের বিভিন্ন বিষয়ে বিরোধ চলে আসছিল। বিরোধের জের ধরে গত ২০ ফেব্রæয়ারি সকালে খোকন তার অনুগত সন্ত্রাসীদের নিয়ে কাওসারের বাড়িতে হানা দেয়। এসময় খোকন মিয়া প্রতিপক্ষ কাওসানের বিরুদ্ধে টাকা চুরির অভিযোগ এনে তাকে বেদম মারপিট করতে থাকে। শোরচিৎকার শোনে কাওসারের স্ত্রী কবিতা বেগম, ছেলে মামনু ও মাসুম এগিয়ে আসলে তাদেরকেও পিটিয়ে গুরুতর জখম করে খোকন ও তার সন্ত্রাসীরা। তাদের আর্ত-চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে হত্যার হুমকি দিয়ে চলে যায় খোকন ও তার সন্ত্রাসীরা। পরে আহতদের কুলাউড়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়া হয়।

এ ঘটনায় আক্রান্ত কাওসারের স্ত্রী কবিতা বেগম বাদী হয়ে খোকনসহ ৪জনকে আসামী করে জুড়ি থানায় একখানা লিখিত অভিযোগ দেন। অভিযোগের অন্য আসামীরা হচ্ছেন, একই গ্রামের ফিরোজ,মনির ও জব্বার।

অভিযোগ দায়েরের ১২দিন অতিবাহিত হয়ে গেলেও আসামীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়নি থানা পুলিশ। অজ্ঞাত কারনে পুলিশ ব্যবস্থা নিচ্ছে না বলে অভিযোগ করেছেন কবিতা বেগম। তিািন এ ব্যাপারে পুলিশের উর্ধিতন কর্তৃপক্ষের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

জুড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ জাহাঙ্গীর হোসেন সর্দার কবিতা বেগমের অভিযোগ প্রাপ্তির সত্যতা নিশ্চিত করে জানান,তদন্তে ঘটনার প্রাথমিক সত্যতা পাওয়া গেছে। আসামীদের বিরুদ্ধে অচিরেই আইনী ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।

  •  
  •  
  •  

আর্কাইভ

shares