| logo

৭ই বৈশাখ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | ২০শে এপ্রিল, ২০১৯ ইং

সিলেটজুড়ে কালবৈশাখী ঝড়ে লণ্ডভণ্ড বাড়িঘর, ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি

প্রকাশিত : এপ্রিল ১৫, ২০১৯, ১৫:০৫

সিলেটজুড়ে কালবৈশাখী ঝড়ে লণ্ডভণ্ড বাড়িঘর, ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি

স্টাফ রিপোর্টার :: কালবৈশাখী ঝড়ে সিলেটের বিভিন্ন স্থানে বাড়িঘর লণ্ডভণ্ড হয়ে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। সোমবার (১৫ এপ্রিল) সকাল সোয়া ৮টা থেকে ৯টার মধ্যে সিলেটের উপর দিয়ে বয়ে যায় এ কালবৈশাখী ঝড়।সিলেটের গোয়াইনঘাট এলাকার হারুনুর রশিদ জানান, কালবৈশাখী ঝড়ে উপজেলার রুস্তুমপুরসহ বিভিন্ন এলাকায় শত শত কাঁচা ও টিনের চালা বিশিষ্ট ঘরবাড়ি ধসে পড়েছে। গাছ উপড়ে পড়েছে।

সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন এলাকায়ও এমন ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে জানিয়েছেন লোকজন।এছাড়া ওসমানীনগরের বিভিন্ন ইউনিয়নে কালবৈশাখী ঝড়ে ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। স্থানীয় বাসিন্দাদের অনেকে জানান, ঝড়ের তাণ্ডবে বাড়িঘর ছাড়াও ফসলি গাছ-গাছালির ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

সিলেট আবহাওয়া অধিদফতরের আবহাওয়াবিদ সাঈদ আহমদ চৌধুরী বলেন, সিলেটের উত্তর ও উত্তর পশ্চিম দিক থেকে প্রায় ৭০ কিলোমিটার বেগে কালবৈশাখী ঝড় হয়েছে। এছাড়া ৮টা ১৪ মিনিট থেকে ৯টার মধ্যে খুব অল্প সময়ে প্রায় ৩৫ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়েছে।

তিনি বলেন, এ সময়ে এটা স্বাভাবিক ঝড়। তবে দুর্বল নেটওয়ার্ক ব্যবস্থার কারণে মানুষকে আগে সতর্ক করতে সক্ষম হন না তারা।এর কারণ হিসেবে তিনি বলেন, টিএন্ডটি থেকে ১০ এমবিপিএস’র সংযোগ আনলেও কার্যত ২ দশমিক ৫ এমবিপিএস স্পিড মিলে। এতে করে নেটওয়ার্কে কাজ করতে দীর্ঘক্ষণ সময় লেগে যায়। বিষয়টি তিনি জেলা প্রশাসনে মাসিক উন্নয়ন সভায় তুলে ধরবেন বলে জানান।

এদিকে, ঝড়ে সিলেট বিমানবন্দর সড়কের লাক্কাতুরা এলাকায় গাছ পড়ে সড়কে যানচলাচল বন্ধ হয়ে যায়। প্রায় ঘন্টা দেড়েকপর গাছ সরানো হলে ফের যান চলাচল শুরু হয় বলে জানান স্থানীয়রা।

ঝড়ে গোয়াইনঘাট উপজেলার রুস্তুমপুরসহ বিভিন্ন এলাকায় শত শত কাঁচা ও টিনের ঘরবাড়ি ধসে পড়েছে বলে জানিয়েছেন স্থানীয় সাংবাদিক মনজুর আহমদ।

সিলেটের আবহাওয়া অফিস জানায়, সিলেটের উত্তর ও উত্তর পশ্চিম দিক থেকে প্রায় ৭০ কিলোমিটার বেগে এ কালবৈশাখী ঝড় বয়ে যায়। এ ছাড়া সোয়া ৮টা থেকে ৯টার মধ্যে খুব অল্প সময়ে প্রায় ৩৫ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ডও করা হয়েছে।

সিলেটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (মিডিয়া) মাহবুবুল আলম বলেন, সিলেটের বিভিন্ন স্থানে ঝড়ে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। তবে প্রাণহানির কোনো ঘটনার খবর পাইনি। তারপরও সব উপজেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলে খোঁজখবর নেওয়া হচ্ছে।

এ ব্যাপারে সিলেটের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সন্দ্বীপন সিংহ বলেন, ঝড়ে সবচেয়ে বেশি ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে সিলেটের বালাগঞ্জ উপজেলায়। এছাড়া অন্য উপজেলাগুলোতেও ক্ষয়ক্ষতি কি পরিমাণ হয়েছে, এর প্রতিবেদন পাঠাতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তারা কাজ করছেন। তবে ঝড়ে প্রাণহানির কোনো ঘটনা ঘটেনি।



সংবাদটি 965 বার পঠিত.
সংবাদটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  • 1.1K
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    1.1K
    Shares
  • 1.1K
    Shares




Contact Us

crimesylhet.com

Address: অফিস : সুরমা মার্কেট তৃতীয় তলা বন্দরবাজার সিলেট।

Tel : +অফিস -০১৭১১-৭০৭২৩২
Mail : crimesylhet2017@gmail.com

Follow Us

Site Map
Show site map

ক্রাইম সিলেট ডটকম কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। অনুমতি ছাড়া এই ওয়েভ সাইটের কোনো লেখা, ছবি ও বিষয়বস্তু অন্য কোথাও প্রকাশ করা বেআইনি।