কানাইঘাটে নও’মুসলিম পরিবারকে ভিট বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দিয়েছে ‘ভূমিদস্যু’রা

প্রকাশিত: ৩:৫৪ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ১১, ২০১৭

Sharing is caring!

ডেস্ক রিপোর্ট : সিলেটের কানাইঘাটে এক নও’মুসলিম পরিবারকে ভিটেবাড়ি থেকে তাড়িয়ে দিয়েছে ‘ভূমিদস্যুরা’। ছেলে মেয়ে নিয়ে পরিবার প্রধান দীর্ঘদিন ধরে ভবঘুরে মানবেতর জীবনযাপন করছেন। এ ঘটনায় এলাকার ধর্মপ্রাণ মানুষের মধ্যে চরম ক্ষোভ বিরাজ করছে। যে কোন সময় ক্ষোভের বিস্ফোরণে এরাকায় দাঙ্গা-হাঙ্গামাসহ ঘটে যেতে পারে অপ্রীতিকর অঘটন।

জানা গেছে, দক্ষিণ সুনামগঞ্জের আশকুড়ি গ্রামের মৃত জগমোহন দাসের পুত্র অবনী দাস আজ থেকে প্রায় ১৩ বছর পূর্বে ২মেয়ে ও ১ছেলে সন্তান নিয়ে সপরিবারে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেন। তখন থেকে তিনি ইসরামী নাম আব্দুর রহমান বলে নামধারন করেন । ধর্মান্তরিত ও স্ত্রীহীন আব্দুর রহমান হিন্দু অধ্যুষিত আশকুড়ি এলাকায় স্থান না পেয়ে ছেলে-মেয়েদের নিয়ে সিলেটের কানাইঘাট উপজেলার ঢাকনাইল দক্ষিণ (ফখরচটি) গ্রামে আশ্রয় নেন। এলাকার মরহুম বশির মেম্বারসহ স্থানীয় ধর্মপ্রাণ লোকজন চাঁদা তুলে বাড়িঘর তৈরী করে নও’মুসলিম আব্দুর রহমান পরিবারকে ওই গ্রামে স্থায়ী বসবাসের সুযোগ করে দেন। তখন নও’মুসলিম আব্দুর রহমান ওই গ্রামের মরহুম আতাউর রহমানের বাকপ্রতিবন্ধী মেয়ে জুবায়দাকে বিয়ে করে ছেলে-মেয়েদের নিয়ে ১২বছরের অধিক সময় ধরে নির্বিবাদে বসবাস করে আসছিলেন। বর্তমানে এলাকার ভু-সম্পত্তির মূল্যবৃদ্ধি পাওয়ায় ওই গ্রামের বেলাল আহমদের নেতৃত্বে একটি ভূমিদস্যুচক্রের শেনদৃষ্টি পড়ে নওমসলিম আব্দুর রহমানের ভিটবাড়ির উপর। তারা গোত্রহীন নও’মুসলিম আব্দুর রহমার পরিবারকে তাড়িয়ে তাদের ভিটবাড়ি দখলে নিতে মরিয়া হয়ে উঠে। এরই ধারাবাহিকতায় ভূমিদস্যুরা এ বছরের ২৬ জুলাই নও’মুসলিম আব্দুর রহমান (৭০) ও তার ছেলে সুহেল আহমদকে (২০) আসামী করে সিলেটের কানাইঘাট থানায় চুরির একটি ‘মিথ্যা’ মামলা {নং-১৬(৭)১৭}দায়ের করে। মামলায় আব্দুর রহমানের পুত্র সুহেল আহমদকে গ্রেফতার করিয়ে জেলে পাঠায় তারা। পাশপাশি ২মেয়েসহ নওমুসলিম আব্দুর রহমান পরিবারকে জোরপূর্বক বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দেয় এবং তার প্রতিবন্ধী স্ত্রী জুবায়দাকেও তার কাছ থেকে জোরপূর্বক সরিয়ে নেয় তারা। তদন্তে পুলিশ আব্দুর রহমানকে মামলা থেকে অব্যাহতি দিলেও তার পুত্র সুহেল এখনো আসামী রয়ে গেছে। দীর্ঘদিন জেল খেটে সুহেল আদালত থেকে জামিন পেলেও বাড়িতে ফিরতে পারছে না বৃদ্ধ পিতা ও ২বোনকে নিয়ে। এ ঘটনায় এলাকার জনমনে চরম ক্ষোভের সঞ্চার হয়েছে। এলাকাবাসী নওমুসলিম আব্দুর রহমান ও তার পরিবারকে তাদের ভিটেমাটিতে ফিরিয়ে দিতে বর্তমান সরকার কর্তৃপক্ষের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

এ ব্যাপারে মামলার বাদী বেলাল আহমদের সাথে মুটোফোনে (০১৭১১-৩৮৯৮৭০) যোগাযোগ করলে তাদের ফখরচটি গ্রামে নওমুসলিম আব্দুর রহমান পরিবারের দীর্ঘদিন ধরে অবস্থান ও বসবাসের কথা স্বীকার করে তিনি সাংবাদিকদের জানান, গ্রামে তাদের মালিকানা কোন বাড়িঘর নেই। জনৈক বশির মেম্বারের দেয়া একখন্ড ভূমির উপর ঘর তৈরী করে তারা বসবাস করে আসছিল। চুরি করার অপরাধে তাদের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে এবং এলাকার লোকজন তাদের তাড়িয়ে দিয়েছেন বলে জানান তিনি।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

December 2017
S S M T W T F
 1
2345678
9101112131415
16171819202122
23242526272829
3031  

সর্বশেষ খবর

………………………..

shares