হিজড়া জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়নে সরকার বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে : জেলা প্রশাসক রাহাত আনোয়ার

প্রকাশিত: 11:02 AM, January 24, 2018

স্টাফ রিপোর্টার : সিলেটের জেলা প্রশাসক মোঃ রাহাত আনোয়ার বলেছেন, সরকার অনগ্রসর জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়নে কাজ করছে। বাংলাদেশকে একটি মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত করতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। তিনি বলেন, সামাজিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করাই বর্তমান সরকারের ভিশন। এজন্য সবাইকে একযোগে কাজ করতে হবে। হিজড়াদের প্রশিক্ষণ, পুনর্বাসন এবং স্বাবলম্বী করার জন্য সমাজ সেবা অধিদপ্তর বিভিন্ন কর্মসূচী পালন করছে। এ ক্ষেত্রে সামাজিক দৃষ্টি ভঙ্গির পরিবর্তন ও জনসচেতনতার উপর জোর দিতে হবে।

 গতকাল মঙ্গলবার সকালে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে জেলা প্রশাসন ও সিলেট জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত হিজড়া জনগোষ্ঠীর জীবনমান উন্নয়ন কার্যক্রমের অধীনে বাংলাদেশে হিজড়া জনগোষ্ঠী উদ্যোগ ও করণীয়’ শীর্ষক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের উপ-পরিচালক নিবাস রঞ্জন দাশের সভাপতিত্বে সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজকর্ম বিভাগের সহকারী অধ্যাপক আবুল কাশেম।বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাবেক সংসদ সদস্য সৈয়দা জেবুন্নেছা হক,অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) শহিদুল ইসলাম চৌধুরী, সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-পুলিশ কমিশনার বিভূতি ভূষণ ব্যানার্জী, সিলেটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ড.আ ক ম আক্তারুজ্জামান বসুনিয়া।
বক্তব্য রাখেন-দৈনিক উত্তর পূর্ব’র প্রধান সম্পাদক আজিজ আহমদ সেলিম, ইমজার সভাপতি আল আজাদ, সিলেট প্রেসক্লাব সভাপতি ইকরামুল কবির, বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সিলেট জেলা ইউনিট কমান্ডের কমান্ডার সুব্রত চক্রবর্তী জুয়েল, মহানগর কমান্ডের ডেপুটি কমান্ডার আব্দুল খালিক, কলামিস্ট আফতাব চৌধুরী, দৈনিক উত্তরপূর্ব’র নির্বাহী সম্পাদক তাপস দাশ পুরকায়স্থ, যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক আলাউদ্দিন, এডভোকেট  ইরফানুজ্জামান চৌধুরী, সিনিয়র সাংবাদিক এম আহমদ আলী, সিলেট অনলাইন প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মকসুদ আহমদ মকসুদ,  সম্মিলিত নাট্যপরিষদ সিলেট এর সাধারণ সম্পাদক রজত কান্তি গুপ্ত, দৈনিক মানবজমিনের সিলেট ব্যুরো প্রধান ওয়েছ খসরু, সিলেট মেট্রোপলিটন চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির পরিচালক মাহবুবুর রহমান, মহিলা চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি স্বর্ণলতা রায়, এডভোকেট আজমল আলী,  জয়িতা শাহিদা শিকদার, চাদনী আক্তার, তামান্না আহমদ,শারমিন কবির, রাণী হিজড়া, সুপ্তা হিজড়া, শাহানা হিজড়া, সুবির হিজড়া প্রমুখ। উপস্থিত ছিলেন বিভাগীয় সমাজসেবা কার্যালয়ের উপ-পরিচালক মোঃ আব্দুর রফিক, প্রবেশন অফিসার তমির হোসেন চৌধুরী, উপজেলা সমাজসেবা অফিসার একে আজাদ ভূইয়া, আবু সাঈদ মিয়া, আব্দুল মুন্তাকিম, তানজিলা তাসনিম, সমাজসেবা অফিসার নূরুল হক, লুৎফুর রহমান, খলিলুর রহমান, জাহানারা বেগম প্রমুখ।
সেমিনারে মূল প্রবন্ধের উপর আলোচনায় অংশ নিয়ে বক্তারা বলেন,হিজড়াদের মূল ধারায় ফিরিয়ে আনতে জীবনমান উন্নয়নে সরকারের পাশাপাশি  সমাজের সকল শ্রেণি পেশার মানুষকে এগিয়ে আসতে হবে। তাদের কর্মমুখী শিক্ষা,পূনর্বাসন সহ অধিকার প্রতিষ্ঠায় কর্মসূচী গ্রহণ করতে হবে। তাদের অভিভাবকদের সেমিনারে উপস্থিতির ব্যবস্থা করতে হবে। হিজড়াদেরকে ও চাঁদাবাজি, সমাজ বিরোধী কাজ থেকে বিরত থাকতে হবে। মানুষের সহানুভুতি পেতে যে আচরণ দরকার সে ভাবে চলতে হবে। বক্তারা হিজড়াদের শিক্ষা, প্রশিক্ষণ, কর্ম সংস্থান, ভুমির অধিকার,বাসস্থান, চিকিৎসা,হিজড়া ভাতার ক্ষেত্রে বয়স সিথিল করণ সহ তাদের মৌলিক অধিকার নিশ্চিত করতে প্রদক্ষেপ গ্রহনের জন্য সরকারের প্রতি সুপারিশ জানান।

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

সর্বশেষ খবর

………………………..