বিশ্বনাথ উপজেলা বিএনপির সভাপতি জালাল উদ্দিন বহিস্কার

প্রকাশিত: ৩:৪২ পূর্বাহ্ণ, অক্টোবর ৩১, ২০২২

বিশ্বনাথ উপজেলা বিএনপির সভাপতি জালাল উদ্দিন বহিস্কার
বিশ্বনাথ প্রতিনিধি : সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলা বিএনপির সভাপতি ও ২রা নভেম্বর অনুষ্ঠিতব্য পৌরসভার প্রথম নির্বাচনের স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী জালাল উদ্দিনকে বিএনপির প্রাথমিক সদস্য পদসহ সকল পর্যায়ের পদ থেকে বহিস্কার করা হয়েছে। ইতিপূর্বে জালাল উদ্দিন বিএনপি থেকে অব্যাহতি চেয়ে আবেদন করলেও দল তাকে বহিষ্কার করেছে।
রোববার (৩০ অক্টোবর) বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল (বিএনপি)’র সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জালাল উদ্দিনকে বহিষ্কার করা হয়।
বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে- ‘জালাল উদ্দিন দলীয় শৃঙ্খলা পরিপন্থী কর্মকান্ডে জড়িত থাকার অভিযোগের জালাল উদ্দিনকে দলের গঠনতন্ত্র মোতাবেক বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল (বিএনপি)’র প্রাথমিক সদস্য পদসহ সকল পর্যায়ের পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। এই সিদ্ধান্ত অবিলম্বে কার্যকর হবে।’
এর পূর্বে গত ১৯ অক্টোবর বিশ্বনাথ পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে প্রার্থী হওয়া জালাল উদ্দিন ‘শারীরিক অসুস্থতার’ কারণ উল্লেখ করে দলীয় পদ থেকে পদত্যাগ করার জন্য তিনি (জালাল) পদত্যাগপত্র জমা দেন। সে সময় তিনি বলেন, ‘দল (বিএনপি) নির্বাচন বর্জন করেছে।
উপজেলা বিএনপির সভাপতি হিসেবে দলের নির্দেশ অমান্য করে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দিতা করলে দল থেকে বহিষ্কার করা হতে পারি, তাই বহিষ্কারের দূর্নাম না লাগার জন্য আগে ভাগেই শারীরিক অসুস্থতার কথা উল্লেখ করে জেলা বিএনপির সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকের কাছে পদত্যাগের আবেদন করেছি।
এব্যাপারে জালাল উদ্দিন বলেন, জনগণের সেবা করার জন্যই রাজনীতি করি। আর প্রায় ১৪ বছর ধরে বিশ্বনাথ উপজেলা বিএনপির সভাপতি’র হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছি এবং করছিন। ইতিমধ্যে দু’বার বিশ্বনাথ সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছি। আর এখন পৌরবাসীর সেবা করার জন্যই নির্বাচনে মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দিতা করছি। ইনশাল্লাহ নির্বাচনে বিজয়ী হবো।
এব্যাপারে কেন্দ্রীয় বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. শাখাওয়াত হোসেন জীবন বলেন, এখন পর্যন্ত বহিস্কারের (রাত সাড়ে ৮টা পর্যন্ত) কোনো তথ্য আমি পাইনি। তবে খোঁজ-খবর নিচ্ছি।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

সর্বশেষ খবর

………………………..