পশ্চিম জাফলং ইউপি নির্বাচনে ভোটারদের চোঁখ সদস্য প্রার্থী জিয়াউরের দিকে

প্রকাশিত: ১২:১২ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ৮, ২০২২

পশ্চিম জাফলং ইউপি নির্বাচনে ভোটারদের চোঁখ সদস্য প্রার্থী জিয়াউরের দিকে

মোঃ রায়হান হোসেন: মনোনয়ন দাখিলের পর পরই শুরু হয়ে গেছে গোয়াইনঘাট উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় নির্বাচনের মেরুকরণ। বইতে শুরু করে নির্বাচনী ঝড়ো হাওয়া। বিশেষ করে গোয়াইনঘাট উপজেলার ২নং পশ্চিম জাফলং ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডে এ হাওয়া চরম হয়ে ওঠেছে। সাধারণ ভোটারদের ভোটে ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ও ওয়ার্ড সদস্য নির্বাচন আলোচনার প্রধান আকর্ষণ হয়ে ওঠেছে। নির্বাচনী এলাকার ভোটারসহ জনপ্রতিনিধিদের সাথে আলাপকালে এমন তথ্য ফুটে ওঠেছে।

বিশেষ করে ২নং পশ্চিম জাফলং ইউনিয়ন পরিষদের ৩নং ওয়ার্ডে জমে ওঠেছে নির্বাচনী প্রচার প্রচারনা। ভোটারদের সমর্থন ও ভোট কুড়াতে আরামের ঘুম হারাম হয়ে গেছে প্রার্থীদের। এর মধ্যে ৩নং ওয়ার্ডে আলোচনায় এগিয়ে রয়েছেন একই ওয়ার্ডের বীর মুক্তিযোদ্ধা ও সাবেক মেম্বার মৃত ফজলুর রহমানের পুত্র জিয়াউর রহমান। গত ৩১ এপ্রিল ২০১৬ সনে ২নং পশ্চিম জাফলং ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য পদে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে তিনি ২০ ভোটে পরাজিত হয়ে দ্বিতীয় স্থান লাভ করেন। এখন নির্বাচনকে ঘিরে তার পক্ষে বিশাল জনমত তৈরি হওয়াতে তিনি আবার পূনরায় নির্বাচন করতে গত ০৪ অক্টোবর ২০২২ ইং সনে নমিনেশন দাখিল করেন।

এছাড়াও এই ওয়ার্ডে সদস্য পদে আরো চার জন প্রার্থী নির্বাচনী মাঠ চষে বেড়াচ্ছেন। তারা হচ্ছেন- ডাঃ ফারুক, নুর গনি সন, আব্দুল কাদির ও পাখি মিয়া।

জিয়াউর রহমানের সঙ্গে নির্বাচনী ভোটের মাঠে সদস্য প্রার্থী আব্দুল কাদিরের হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে এমটা জানিয়েছেন ভোটারগণ। তবে অনেকের মতে এ নির্বাচনে ৩নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য পদে প্রধান আকর্ষণ হয়ে ওঠেছেন ও ভোটারদের সমর্থনে এগিয়ে রয়েছেন জিয়াউর রহমান। এক কথায় ২নং পশ্চিম জাফলং ইউপি নির্বাচনে ৩নং ওয়ার্ডে ভোটারদের চোঁখ সদস্য প্রার্থী জিয়াউর রহমানের দিকে।

তাই ওয়ার্ডের হাট-বাজার সহ ধর্মীয় উপাসনালয় ক্যাম্পাসের প্রধান আলোচ্য বিষয় এখন প্রার্থী, ভোট এবং জয়-পরাজয়। পিছিয়ে নেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুক। ফেইসবুকে সম্ভাব্য প্রার্থীদের অনুসারীরা প্রার্থীর পক্ষে সাফাই দিচ্ছেন।

গোয়াইনঘাট উপজেলার ৪ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করেছে নির্বাচন কমিশন। আগামী ২ নভেম্বর ভোট গ্রহণের সময় রেখে এ তফসিল ঘোষণা করা হয়। মঙ্গলবার (২০ সেপ্টেম্বর) নির্বাচন কমিশনের উপসচিব মো. আতিয়ার রহমান স্বাক্ষরিত এক পরিপত্রে এ তফসিল ঘোষণা করা হয়। ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী যে ৪ ইউনিয়ন পরিষদে নির্বাচন হবে। সেগুলো হল- পূর্ব জাফলং, মধ্য জাফলং, গোয়াইনঘাট সদর ও পশ্চিম। তফসিল অনুযায়ী- মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন ৬ ছিল অক্টোবর, মনোনয়ন যাচাই-বাচাই ১০ অক্টোবর, প্রার্থিতা প্রত্যাহার ১৭ অক্টোবর, প্রতীক বরাদ্দ ১৮ অক্টোবর আর ভোটগ্রহণ ২ নভেম্বর।

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

সর্বশেষ খবর

………………………..