সিলেটে ‘সুদখোরে’রা বেপরোয়া

প্রকাশিত: ১:১৭ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৪, ২০২০

সিলেটে ‘সুদখোরে’রা বেপরোয়া

Sharing is caring!

নিজস্ব প্রতিবেদক :: বার্ষিক সুদ ২৪০ থেকে ৩০০ শতাংশ! হ্যাঁ, এই হারেই সুদ আদায় করছেন অবৈধ সুদের কারবারিরা। ঋণগ্রহীতা টাকা দিতে ব্যর্থ হলে শুরু হয় নানা অত্যাচার। এই চিত্র দেখা যাচ্ছে সিলেট নগরীর অনাচে-কানাচে। ‘সুদখোর’দের উৎপাতে সিলেটের বিভিন্ন মার্কেটের ব্যসায়ী নিরুদ্দেশ হচ্ছেন। প্রশাসন ও জনপ্রতিনিধিরা সুদের ব্যবসায়ীদের নিয়ন্ত্রণ করতে পারছেন না।

নগরীর কয়েকজন ব্যবসায়ী বলেন, বন্দরবাজার, লালবাজার, জিন্দাবাজার, লালধীঘির পাড়, কালিঘাট ও দক্ষিণ সুরমার কদমতলী বালুর মাঠসহ এসকল এলাকায় শতাধিক মানুষ সুদের ব্যবসায় জড়িত। তাঁরা এক লাখ টাকার বিপরীতে প্রতি মাসে ২০ থেকে ২৫ হাজার টাকা সুদ আদায় করেন। জামানত হিসেবে ঋণগ্রহীতাদের কাছ থেকে ফাঁকা চেক নেন।

হাসান মার্কেটের এক ব্যবসায়ী বলেন, দুই বছর আগে তিনি এক সুদের কারবারির কাছ থেকে প্রতি মাসে এক লাখ টাকার বিপরীতে ২০ হাজার টাকা সুদ দেওয়ার চুক্তিতে ৮৩ হাজার টাকা নিয়েছিলেন। ইতিমধ্যে ২ লাখ ৭০ হাজার টাকা শোধ করেছেন। কিন্তু সুদুড়ী আরও ১০ লাখ টাকা চাচ্ছেন।ব্যবসায়ী আরও বলেন, জামানত হিসেবে তিনি দুটি ফাঁকা চেক দিয়েছিলেন। এখন শুনতে পাচ্ছেন, ওই চেক দুটিতে মোটা অঙ্ক বসানো হয়েছে।

এই সুদের কারবারিদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া জন্য সিলেটের প্রশাসনের নিকট আশু হস্থক্ষেপ কামনা করছেন স্থানীয় সচেতন মহল।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

September 2020
S S M T W T F
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
2627282930  

সর্বশেষ খবর

………………………..

shares