সম্প্রীতির নজির, সব দায়িত্ব কাঁধে নিয়ে দুই হিন্দু মেয়েকে বিয়ে দিলেন মুসলিম ‘মামা’

প্রকাশিত: ৭:১৬ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৫, ২০২০

সম্প্রীতির নজির, সব দায়িত্ব কাঁধে নিয়ে দুই হিন্দু মেয়েকে বিয়ে দিলেন মুসলিম ‘মামা’

Sharing is caring!

ক্রাইম সিলেট ডেস্ক : ভারত-মহারাষ্ট্রের আহমেদ নগরের বাসিন্দা বাবাভাই পাঠান ৷ দুই হিন্দু মেয়েকে তিনিই মানুষ করেছেন৷ মানুষই মানুষের মধ্যে বিভেদ সৃষ্টি করে ৷ ধর্ম ভুলে মানুষের সেবায় নিজেকে নিয়োজিত করাই আসল ৷ যে কাজটি করে দেখালেন মহারাষ্ট্রের আহমেদনগরের বাসিন্দা বাবাভাই পাঠান ৷ নিজের খরচে দুই হিন্দু মেয়ের বিয়ে দিলেন মুসলিম ‘মামা’৷

হ্যাঁ, অবাক করার মতো ঘটনা হলেও সত্যি ৷ মহারাষ্ট্রের আহমেদ নগরের বাসিন্দা বাবাভাই পাঠান ৷ দুই হিন্দু মেয়েকে তিনিই মানুষ করেছেন ৷ এবং বিয়ের সময় যখন এসেছে, তখনও নিজের কর্তব্য পালন করলেন ধর্মের কথা না ভেবেই৷ একসঙ্গেই দুই মেয়েকে বিয়ে দিলেন নিজের খরচে ৷ তাও সমস্ত হিন্দু রীতি মেনেই ৷

মহারাষ্ট্রের বোধেগাঁওর বাসিন্দা সবিতা ভুশারি হলেন ওই দুই মেয়ের মা ৷ তাঁর একটি ছেলেও রয়েছে ৷ কিন্তু বহুদিন আগেই সবিতার স্বামী তাঁদের ছেড়ে চলে যান ৷ তারপর থেকে নিজের বাপের বাড়িতেই বাচ্চাদের নিয়ে থাকতেন সবিতাদেবী৷ তাঁর নিজের কোনও ভাই নেই ৷ তাই পাশের বাড়ির এই বাবাভাই পাঠানকেই নিজের ভাই হিসেবে দেখতেন সবিতাদেবী৷

অভাবের সংসারে দুই মেয়ের বিয়ে দেওয়া খুবই কঠিন ছিল ৷ কিন্তু যথাসময়ে সাহায্যের হাত বাড়ান পাঠান৷ নিজের মেয়ের মতোই বিয়ে দিলেন দু’জনের ৷ বিয়ের অর্ধেকেরও বেশি খরচ পাঠানই দিয়েছেন ৷ সম্পূর্ণ হিন্দু মতেই মেয়েদের কন্যাদান করেন মুসলিম ‘মামা’ বাবাভাই পাঠান ৷

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

সর্বশেষ খবর

………………………..

shares