নববধূকে খুন করে মাটি চাপা, ঘাতক স্বামী গ্রেফতার

প্রকাশিত: ৭:০৮ অপরাহ্ণ, মার্চ ৭, ২০২০

নববধূকে খুন করে মাটি চাপা, ঘাতক স্বামী গ্রেফতার

Sharing is caring!

ক্রাইম সিলেট ডেস্ক :: পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় নববধূ চম্পা বেগমকে (৩২) খুনের ঘটনায় ঘাতক স্বামী বাবুল হাওলাদারকে কলাপাড়া থানা পুলিশ শুক্রবার দিবাগত মধ্যরাতে পাবনা জেলার আটঘরিয়া থানার মাঝগ্রাম থেকে গ্রেফতার করেছে। তাকে আজ শনিবার সকালে কলাপাড়া থানায় নিয়ে আসা হয়েছে।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা কলাপাড়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো.আসাদুর রহমান জানান, আটক বাবুলের দেয়া তথ্যমতে তার বাড়ির পাশের একটি মরা খাল থেকে গৃহবধূ চম্পার ব্যবহৃত ওড়না, ভ্যানিটি ব্যাগ, স্কার্ফ, চাদর ও বোরকার অংশবিশেষ এবং একটি কোদাল শনিবার সকালে উদ্ধার করা হয়েছে। পুলিশ বাবুলের কাছ থেকে চম্পা হত্যা সম্পর্কিত গুরুত্বপূর্ণ তথ্য উদঘাটন করতে সক্ষম হয়েছে।

উল্লেখ্য, কলাপাড়ার গামুরিবুনিয়া গ্রামের বাবুল হাওলাদার স্ত্রী থাকা সত্ত্বেও বরগুনার তালতলীর কলারং গ্রামের চম্পা বেগমকে বিয়ে করে। ১২ জানুয়ারি নববধূকে বাবুল তার বাড়িতে নিয়ে আসে। এরপর থেকে চম্পা বেগম নিখোঁজ ছিল। চম্পার বাবা চানমিয়া মেয়ে নিখোঁজের ঘটনায় ১৪ জানুয়ারি বরগুনার তালতলী থানায় একটি জিডি করেন। ২২ জানুয়ারি কলাপাড়া থানা পুলিশ পূর্ব-চাকামইয়া গ্রামের বাবুল হাওলাদারের বাড়ির পেছনের ফসলী জমির মাটির নিচে চাপা দেয়া চম্পার মৃতদেহ উদ্ধার করে। এ ঘটনায় ওইদিন কলাপাড়া থানায় ১১জনকে আসামি করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন চম্পার বাবা। মামলায় প্রধান আসামি করা হয় স্বামী বাবুল হাওলাদারকে। পুলিশ ইতোপূর্বে এ মামলার আসামি বাবুলের প্রথম স্ত্রী কোহিনুর এবং অপর এক আসামি বন্ধুক গ্রেফতার করে।

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

সর্বশেষ খবর

………………………..

shares