ঈদের বাজার: গরুর গলায় বোমা বেঁধে ঢুকানো হচ্ছে বাংলাদেশে!

প্রকাশিত: ৬:২৪ অপরাহ্ণ, জুলাই ২৬, ২০১৯

ঈদের বাজার: গরুর গলায় বোমা বেঁধে ঢুকানো হচ্ছে বাংলাদেশে!

Sharing is caring!

ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তে গবাদি পশু চোরাচালান কোনও নতুন ঘটনা নয়। সীমান্তে এই চোরাচালান রুখতে সব সময়ই তৎপর থাকে দুই দেশের সীমান্ত রক্ষীরা। কিন্তু এরপরও পাচার বন্ধ হচ্ছে না।

এবার ভারতীয় সীমান্ত রক্ষী বিএসএফ দাবি করেছে, পাচারকারীরা নিরাপত্তারক্ষীদের ফাঁকি দিতে অভিনব পদ্ধতি অবলম্বন করছে। বৃহস্পতিবার বিএসএফ গলায় বিস্ফোরক বাঁধা গরু উদ্ধার করে। তাদের দাবি, এসব গরু বাংলাদেশে পাচার হচ্ছিল। পাচারে যাতে বাধা না দেয়া হয় সেজন্য গরুর গলায় বিস্ফোরক বাধা হয়েছে।

এনডিটিভি, টাইমস অব ইন্ডিয়া, টেলিগ্রাফ ইন্ডিয়া সহ ভারতের শীর্ষস্থানীয় সংবাদমাধ্যমে এই খবর আজ বৃহস্পতিবার প্রকাশিত হয়েছে।

এনডিটিভিকে বিএসএফ কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, এই প্রথম তারা এমন নিষ্ঠুর পদ্ধতির সাক্ষী হলেন। গরুর গলায় আইইডি বা বিস্ফোরক বেঁধে রাখা হয়েছে। কেউ তাদের ধরে ফেললে যাতে সেই বিস্ফোরক ফেটে আহত হয়, সেই কারণেই এমন পরিকল্পনা বলে দাবি বিএসএফের।

টেলিগ্রাফ ইন্ডিয়া একটি ছবি প্রকাশ করেছে; যাতে দেখা যাচ্ছে একটি গরুর গলায় অ্যালুমিনিয়াম কৌটোয় ভরে রাখা হয়েছে বিস্ফোরক। এই গরুটি পশ্চিমবঙ্গের হারুডাঙা সীমান্ত পোস্ট থেকে উদ্ধার করা হয়েছে।

এনডিটিভি জানিয়েছে, কলা গাছ ও দড়ির সাহায্যে বেঁধে গরুগুলিকে মালদা, মুর্শিদাবাদ, উত্তর ২৪ পরগনা ও নদিয়ার বিভিন্ন নদীতে ভাসিয়ে দেওয়া হয়।

গতকাল বুধবার থেকে দু’দিনের মধ্যে ধরা পড়েছে সীমান্তে ৩৬৫টি গবাদি পশু। গত দু’সপ্তাহে ১,৫০০ গরু ও মোষ উদ্ধার হয়েছে বলে জানানো হয়েছে বিএসএফের পক্ষ থেকে। অবশ্য এ বিষয়ে বাংলাদেশি সীমান্তরক্ষীদের কোনো বক্তব্য ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে পাওয়া যায়নি।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

সর্বশেষ খবর

………………………..

shares