কুলাউড়ায় ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহতদের মধ্যে চারজনের পরিচয় মিলেছে

প্রকাশিত: ২:১৮ অপরাহ্ণ, জুন ২৪, ২০১৯

কুলাউড়ায় ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহতদের মধ্যে চারজনের পরিচয় মিলেছে

কুলাউড়ার বরমচাল রেলক্রসিং এলাকায় ভয়াবহ ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহত চার যাত্রীর পরিচয় মিলেছে। নিহত ৪ যাত্রীর মধ্যে ৩ জন নারী ও একজন পুরুষ।

নিহত চারজন হলেন- কুলাউড়া পৌরসভার বাসিন্দা ও ঠিকাদার আব্দুল বারির স্ত্রী মানোয়ারা পারভীন (৪৫), সিলেটের মোগলাবাজার থানাধীন আব্দুল্লাহপুর গ্রামের আব্দুল বারির মেয়ে ফাহমিদা ইয়াসমিন ইভা (২০), বাগেরহাট জেলার সানজিদা বেগম (২০) ও হবিগঞ্জ জেলার বাহুবল উপজেলার ডবলডর গ্রামের নুর হোসেনের ছেলে কাওছার আহমদ (২৬)।

এর মধ্যে ইভা ও সানজিদা নামের দু’জন সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজের নাসিং ইন্সটিটিউটের তৃতীয় বর্ষের ছাত্রী।

কুলাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা (টিএইচও) ডা. নুরুল হক বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। নিহতদের লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

এদিকে স্থানীয় সুত্র মতে ভয়াবহ ট্রেন দুর্ঘটনায় এ পর্যন্ত ৭ জনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এছাড়া বহু হতাহতের আশঙ্কা করা হচ্ছে। যদিও দায়িত্বশীল কেউ এখনও ৭ জন নিহতের ঘটনা স্বীকার করেনি।

এর আগে রোববার রাতে সিলেট স্টেশন থেকে যাত্রী নিয়ে ঢাকার উদ্দেশ্য যাত্রা করা ট্রেনটি রাত ১২টার দিকে কুলাউড়ার বরমচাল স্টেশনের পাশে ঢাকাগামী উপবনের ৩ টি বগি ছিটকে পড়ে ছোট একটি নদীর উপর।

এর ফলে বহু লোক হতাহতের পাশাপাশি সিলেটের সঙ্গে সারাদেশের ট্রেন যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যায়।

এদিকে শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত উদ্ধার কাজ চলছে বলে জানা গেছে। এছাড়া দুর্ঘটনা কবলিত উপবন এক্সপ্রেস ট্রেনের উদ্ধারকাজ পরিদর্শন করেছেন রেলপথ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. মোফাজ্জেল হোসেন। এসময় তিনি রিলিফ ট্রেনের উদ্ধার তৎপরতা পরিদর্শন করে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা প্রদান করেন এবং বিকেল ৫টার মধ্যে উদ্ধার কাজ শেষ করার আশ্বাস দেন।

Sharing is caring!

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

সর্বশেষ খবর

………………………..