সিলেটের প্রবীণ শায়খুল হাদীস আল্লামা বারকুটির জানাজায় হাজারো মানুষের ঢল

প্রকাশিত: ৯:৩০ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১২, ২০১৮

সিলেটের প্রবীণ শায়খুল হাদীস আল্লামা বারকুটির জানাজায় হাজারো মানুষের ঢল
ডেস্ক রিপোর্ট :: বৃহত্তর সিলেটের প্রবীণ শায়খুল হাদীস, ক্বওমী মাদ্রাসা শিক্ষাবোর্ড আযাদ দ্বীনি এদারায়ে তালীম বাংলাদেশ এর সাবেক সভাপতি, জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের সাবেক সভাপতি ও সিলেট জেলা জমিয়তের বর্তমান উপদেষ্টা প্রবীন শায়খুল হাদীস আল­ামা হোসাইন আহমদ বারকুটি গতকাল শুক্রবার রাত ১১টা ৪৫ মিনিটে তিনি নিজ বাড়িতে ইন্তেকাল করেন। ইন্নালিল­াহি ওয়াইন্না ইলাহিরাজিউন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৯৬ বছর। স্ত্রী, ৫ ছেলে, ৩ মেয়ে সহ অসংখ্য গুনগ্রাহী রেখে গেছেন। তার মৃত্যুর খবর শুনে সিলেট বিভাগের বিভিন্ন মাদ্রাসার মুহতামিম ও শিক্ষক-ছাত্রবৃন্দ সহ মুসলি­রা তাকে শেষ বারের এক নজর দেখতে মরহুমের বাড়িতে ভীড় জমান। আল­ামা হুসাইন আহমদ বারকুটির নামাজে জানাজা শনিবার (১২ আগস্ট) বাদ আছর সিলেটের গোলাপগঞ্জ উপজেলার জামেয়া ইসলামিয়া বারকুট মাদ্রাসা প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত হয়। জানাজার ইমামতি করেন মরহুমের জামাতা মাওলানা হাফিজ আজদ উদ্দিন নোমানী। পরে মরহুমের পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়।

জানাজা পূর্ব সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন, ক্বওমী মাদ্রাসা শিক্ষাবোর্ড আযাদ দ্বীনি এদারায়ে তালীম বাংলাদেশ এর সভাপতি ও জামেয়া মাদানীয়া আঙ্গুরা মোহাম্মদপুরের মহাপরিচালক আল­ামা শায়খ জিয়া উদ্দিন, সাধারন সম্পাদক প্রিন্সিপাল মাওলানা শায়খ আব্দুল বছির, দরগাহ মাদ্রাসার শায়খুল হাদীস মুফতি মুহিবুল হক গাছবাড়ি, আল­ামা নুর ইসলাম খান সুনামগঞ্জী, আলামা মকদ্দুছ আলী, গুলমুকাপন মাদ্রাসার শায়খুল হাদীস ও মুহতামিম মাওলানা শায়খ আব্দুশ শহীদ, জামেয়া তাওয়াক্কুলিয়া রেঙ্গার মুহতামিম মাওলানা মুহিউল ইসলাম বুরহান, জামেয়া মাহমুদিয়া সোবহানিঘাট মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা শায়খ শফিকুল হক আমকুনি, জামেয়া মাদানীয়া আঙ্গুরা মোহাম্মদপুরের শায়খুল হাদীস মুফতি মুজিবুর রহমান, জামেয়া দারুল কোরআন সিলেটের প্রিন্সিপাল সাবেক এমপি এডভোকেট মাওলানা শাহীনুর পাশা চৌধুরী, মাওলানা এমদাদুল­াহ, শায়খ কাতিয়া, মুক্তিচর মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা মুহিবুর রহমান, রামদা মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা ইউসুফ খাদিমানি, গহরপুর মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা মুসলেহ উদ্দিন রাজু, বহরগ্রাম মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা এনামূল হক, ধনুকান্দি মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা মোস্তাক আহমদ খান, বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ মাওলানা রেজাউল করিম জালালী, গোলাপগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হাফিজ নাজমুল ইসলাম, বিয়ানীবাজার উপজেলা চেয়ারম্যান আতাউর রহমান খান, জাতীয় ইমাম সমিতি সিলেট মহানগর সভাপতি মাওলানা হাবিব আহমদ শিহাব সহ আওয়ামী লীগ, বিএনপি, জাতীয় পার্টি, জমিয়ত, জামায়াত, খেলাফত মজলিস, বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস ও ইসলামী ঐক্যজোট সহ বিভিন্ন রাজনৈতিক পেশাজীবিসহ মাদ্রাসার মুহতামিম, শিক্ষক, ছাত্রসহ বিপুল সংখ্যক মুসলি­রা অংশগ্রহণ করেন। পরিবারের পক্ষ থেকে বক্তব্য রাখেন মরহুমের ২য় ছেলে মাওলানা জাবির আহমদ জুলফিকার।
বিভিন্ন মহলের শোক: এদিকে জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের সাবেক সহ সভাপতি আল­ামা হোসাইন আহমদ বারকুটির মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের সভাপতি আল­ামা শায়খ আব্দুল মোমিন, সিনিয়র সহ সভাপতি আল­ামা হাফিজ তাফাজ্জুল হক হবিগঞ্জি, সহ সভাপতি মাওলানা শায়খ জিয়া উদ্দিন, মাওলানা উবায়দুল­াহ ফারুক, মহাসচিব আল­ামা নুর হোসাইন ক্বাসেমী, সিলেট জেলা জমিয়তের সভাপতি আল­ামা শায়খ জিয়া উদ্দিন, মহানগর সভাপতি মাওলানা খলিলুর রহমান, জেলার সাধারণ সম্পাদক মাওলানা আতাউর রহমান, মহানগর সাধারণ সম্পাদক হাফিজ ফখরুজ্জামান, ছাত্র জমিয়ত বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় সভাপতি এম. সাইফুর রহমান, সিলেট মহানগর ইমাম সমিতির সভাপতি মাওলানা হাবিব আহমদ শিহাব, সাধারণ সম্পাদক মাওলানা ক্বারী সিরাজুল ইসলাম, বিয়ানীবাজার উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মুফতি শিব্বির আহমদ, দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মাওলানা তৈয়ীবুর রহমান চৌধুরী, গোলাপগঞ্জ উপজেলা জমিয়তের সহ সভাপতি মাওলানা শায়খ আব্দুল মতিন নাদিয়া, সাধারণ সম্পাদক মাওলানা মাহফুজ আহমদ, মাদানী কাফেলা বাংলাদেশের সভাপতি মাওলানা রুহুল আমিন নগরী, সাধারণ সম্পাদক মাওলানা সালেহ আহমদ শাহবাগী, সিলেট জেলা যুব জমিয়তের সভাপতি মাওলানা মোহাম্মদ আলী, সাধারণ সম্পাদক মাওলানা রায়হান উদ্দিন, মহানগর যুব জমিয়তের সভাপতি মাওলানা কবির আহমদ, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল আহাদ আল আতিক, জেলা ছাত্র জমিয়তের সভাপতি হাফিজ ফরহাদ আহমদ, সাধারণ সম্পাদক হাফিজ ফয়েজ উদ্দিন, মহানগর সভাপতি মোহাম্মদ লুৎফুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক ইমরান আহমদ। শোকবার্তায় নেতৃবৃন্দ বলেন, আল­ামা হোসাইন আহমদ বারকুটির মৃত্যুতে সিলেটবাসী একজন আলেম সমাজের অভিভাবককে হারালো। যা সহজে পূর্ণ হবার নয়। তিনি মৃত্যু পূর্ব পর্যন্ত ইসলাম ও মুসলমানদের জন্য আজীবন খেদমত করে গেছেন। আল­াহ পাক রাব্বুল আলামিন তার এই দ্বীনি খেদমতকে যেন কবুল করেন এবং মরহুমের শোক সন্তুপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।

Sharing is caring!

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

সর্বশেষ খবর

………………………..