শিক্ষামন্ত্রীর ঘাঁটিতে চমক দেখাতে চান চিত্রনায়ক হেলাল খান

প্রকাশিত: ৩:০৮ অপরাহ্ণ, জুলাই ৭, ২০১৮

শিক্ষামন্ত্রীর ঘাঁটিতে চমক দেখাতে চান চিত্রনায়ক হেলাল খান

স্টাফ রিপোর্টার :: সিলেট-৬ আসন। প্রবাসী অধ্যুষিত এলাকা গোলাপগঞ্জ ও বিয়ানীবাজার উপজেলা নিয়ে গঠিত। গত জাতীয় সংসদ নির্বাচনে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ নৌকা প্রতীক নিয়ে জয়লাভ করেন। এমপি নির্বাচিত হয়েই তিনি গোলাপগঞ্জ বিয়ানীবাজারকে মডেল হিসেবে গড়ে তোলতে কাজ শুরু করেন। সময়ের পরিবর্তনে এই এলাকায় লেগেছে আধুনিকতার ছোঁয়া। এক সময় যোগাযোগ ব্যবস্থায় আমূল পরিবর্তন এসেছিল।
এখন এই এলাকার যোগাযোগের ব্যবস্থা নাজুক। আগামী নির্বাচন নিয়েও এখনই মাঠে সরব আওয়ামী লীগ ও বিএনপি। মরণ কামড় দিয়ে এবার বিজয়ের মুকুট ছিনিয়ে নিতে মরিয়া বিএনপি।

আওয়ামী লীগে বিদ্রোহের সুযোগ ও বিগত সময়ে ভুল ত্র“টিকে কাজে লাগিয়ে চমক দেখাতে চায় বিএনপি। কেন্দ্রীয় বিএনপির নেতা ও কেন্দ্রীয় জাসাসের সাধারণ সম্পাদক চিত্রনায়ক হেলাল খাঁন এবং সিলেট জেলা বিএনপির সভাপতি আবুল কাহের চৌধরী শামীম দলীয় মনোনয়ন পেতে জোর তৎপরতা শুরু করেছেন। নির্বাচনী এলাকায় দুজনেরই রয়েছে পরিচ্ছন্ন ইমেজ। তবে চিত্রনায়ক হেলাল খাঁনের রয়েছে বিশাল পরিচিতি। ওদিকে বিদ্রোহের দাবানল আওয়ামী লীগের কপালে এখন চিন্তার ভাঁজ। সর্বশেষ বিএনপিবিহীন দশম জাতীয় নির্বাচনে বিনাভোটের এমপি হয়ে এখন মন্ত্রীত্ব করছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। গত ইউপি নির্বাচনে বেশিরভাগ ইউনিয়নে জয়লাভ করে বিএনপি প্রার্থীরা। রাজনীতির মাঠে সরব জাসাস সেক্রেটারি চিত্রনায়ক হেলাল খাঁন। ২০০৮ সাল থেকে এলাকায় সক্রিয়। ব্যক্তি ও পারিবারিক ইমেজ কাজে লাগিয়ে চমক দেখাতে মরিয়া তিনি।

চিত্রনায়ক হেলাল খাঁন বলেন, সুষ্ঠু নির্বাচন নিয়ে স্থানীয় ও জাতীয় পর্যায়ে শঙ্কা রয়েছে। তৃণমূলের মানুষ স্বচ্ছ নির্বাচনের জন্য উন্মুখ। দেশের মানুষ ভোটারবিহীন একদলীয় নির্বাচনের কলঙ্ক দেখতে চায় না। দলীয় মনোনয়ন নিয়ে হাইকমান্ডের ওপর আস্থাশীল তিনি। তিনি বলেন, সুষ্ঠু নির্বাচন হলে বিএনপির প্রার্থী অবশ্যই বিজয়ী হবে।

বিএনপির সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে জিয়া পরিবারের ঘনিষ্ঠজন হিসেবে পরিচিত চিত্রনায়ক হেলাল খাঁনের প্রার্থিতা নিয়ে ব্যাপক আলোচনা রয়েছে।জিয়া পরিবারের বিপদের সময় জিয়া পরিবারের পাশে দাঁড়িয়ে কেন্দ্রে জনপ্রিয় হয়ে উঠেছেন চিত্রনায়ক হেলাল খাঁন। জাসাসের সাধারণ সম্পাদক হওয়ার পর জাসাসকে সংগঠিত করার ক্ষেত্রে তিনি নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। গোলাপগঞ্জ ও বিয়ানীবাজারের সর্বমহলে তার রয়েছে চিত্রনায়ক হেলাল খাঁনের গ্রহণযোগ্যতা। সম্প্রতি দলীয় এজেন্ডা বাস্তবায়নে যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপের বিভিন্ন দেশ সফর করেন তিনি। দলের মনোনয়ন পাওয়ার ব্যাপারে তিনি অনেক আশাবাদী। চিত্রনায়ক হেলাল খাঁন বলেন, গোলাপগঞ্জ-বিয়ানীবাজারের অনেক এলাকা এখনো খুবই অবহেলিত। স্বাধীনতার পর উন্নয়ন হয়নি। তাই বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার ঘোষিত ভিশন-২০৩০ বাস্তবায়নের লক্ষ্যে এলাকার উন্নয়নে কাজ করছি। দলের চেয়ারপারসন যদি আমাকে মনোনয়ন দেন তাহলে আসনটি পুনরুদ্ধার করতে পারবো ইনশাআল্লাহ।

Sharing is caring!

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

সর্বশেষ খবর

………………………..